রুমা ও থানচিতে ব্যাংক ডাকাতির ঘটনায় কঠোর শাস্তির হুঁশিয়ারি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর

23

॥ ডেস্ক রিপোর্ট ॥
বান্দরবানের রুমা ও থানচিতে ব্যাংকে ডাকাতি, অস্ত্র লুট ও ম্যানেজারকে অপহরণের ঘটনায় কঠোর শাস্তির হুঁশিয়ারি দিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।
বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) সকালে সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, যারা এমন দুর্ধর্ষ ঘটনা ঘটিয়েছে তাদের বিচার হবে, শাস্তি হবে, আমরা কঠোর শাস্তির ব্যবস্থা করব।
গত মঙ্গলবার বান্দরবানের রুমায় ব্যাংকের ভল্ট ভেঙে ১ কোটি ৫৯ লাখ টাকা লুট করে সন্ত্রাসীরা। এ সময় ব্যাংকের নিরাপত্তায় থাকা ১০ পুলিশ ও ৪ আনসার সদস্যের অস্ত্র ছিনিয়ে নিয়ে যায়। এমনকি ব্যাংকের ম্যানেজারকেও অপহরণ করে নিয়ে যায়। এর একদিন পর গতকাল বুধবার থানচিতে সোনালী এবং কৃষি ব্যাংকের শাখায়ও ডাকাতির অভিযোগ পাওয়া যায়।
প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় সূত্র জানায়, গতকাল দুপুরে থানচি বাজারে দুটি চাঁদের গাড়িতে পাহাড়ের অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা এসে দুই দলে বিভক্ত হয়ে থানচি উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন সোনালী ব্যাংক ও কৃষি ব্যাংকের ভেতরে ঢোকে। এ সময় সন্ত্রাসীরা দুই ব্যাংকের কর্মকর্তা ও কর্মচারিদের বন্দি করে। তারা সোনালী ব্যাংক থেকে নগদ ১৫ লাখ টাকা ও কৃষি ব্যাংকে গ্রাহকের আড়াই লাখ টাকা ও বেশকিছু মোবাইল ফোন নিয়ে যায়। এ সময় নিরাপত্তারক্ষী ও পুলিশ তারা প্রতিহতে এগিয়ে এলে ডাকাতরা ফাঁকা গুলি ছুড়ে পালিয়ে যায়।
বান্দারবান জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রায়হান কাজেমী বলেন, দুটি গাড়িতে অস্ত্রধারীরা এসে হামলা চালিয়েছে। তবে এটা ডাকাতির উদ্দেশ্যে হামলা কি না, সেটা সঠিকভাবে বলা যাচ্ছে না। পুলিশ ও নিরাপত্তারক্ষীদের লক্ষ্য করে গুলি করেছে অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা। এ ব্যাপারে তদন্ত চলছে।