দীঘিনালায় সড়ক ডুবে বন্ধ হয়ে গেছে যান চলাচল, বন্যার্তদের জন্য আশ্রয়কেন্দ্র চালু

6

দীঘিনালা প্রতিনিধিঃ-টানা ভারী বষর্ণে দীঘিনালায় উপজেলার হেডকোয়াটার এলাকায় বেইলী ব্রিজ পানিতে তলিয়ে যাওয়ায় যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে। এতে করে ছোট মেরুং এবং লংগদু উপজেলার সাথে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। বন্যার্তদের জন্য আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে। আশ্রয়কেন্দ্রে ১০ পরিবার আশ্রয় নিয়েছে। আশ্রয়কেন্দ্র পরিদর্শন করেছেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফাহমিদা মোস্তফা।
সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায়, উপজেলার মেরুং ইউনিয়নের হেডকোয়াটার এলাকার বেইলী ব্রিজ পানিতে তলিয়ে গেছে। এসময় যান চলাচল বন্ধ হয়ে আটকা পড়ে মানুষ। পরে স্থানীয়রা নৌকায় করে পারাপার করতে দেখা যায়। এছাড়া মেরুং বাজার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় গিয়ে দেখা যায়, পানিবন্দি বন্যাদূর্গতরা আশ্রয় নিয়েছে আশ্রয়কেন্দ্রে।
এ ব্যাপারে চিটাগাং পাড়ার বাসিন্দা রুমা বেগম (৩৪) জানান, বন্যার পানিতে বসতবাড়ি তলিয়ে যাওয়ার ফলে আশ্রয়কেন্দ্রে আশ্রয় নিয়েছি।
এ ব্যাপারে দীঘিনালা বাস টার্মিনাল শান্তি কাউন্টারের লাইনম্যান মিন্টু চৌধুরী জানান, রাস্তা বন্যার পানিতে তলিয়ে যাওয়ার কারণে লংগদু থেকে ছেড়ে আসা শান্তি পরিবহনের বাস দীঘিনালা আসতে পারেনি। ফলে ওইসব যাত্রীদের নৌকায় পারাপার করে দীঘিনালা বাস টার্মিনাল এনে অন্য গাড়িতে তোলা হয়েছে।
এদিকে ১নং মেরুং ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মাহামুদা বেগম লাকী জানান, আমার ইউনিয়নের চিটাগাং পাড়ার প্রায় ১০ পরিবার পানিতে তলিয়ে গেলে তাদের উদ্ধার করে মেরুং বাজার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় আশ্রয়কেন্দ্রে রাখা হয়েছে। সেখানে তাদের প্রয়োজনীয় খাবারের ব্যবস্থা করা হয়েছে। তিনি আরো জানান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফাহমিদা মোস্তফার নির্দেশনা মোতাবেক আশ্রিত লোকজনের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে।