বিধিনিষেধের মাঝেও রাঙ্গামাটিতে পর্যটকের উপচেপড়া ভীড়

35

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাঙ্গামাটিঃ-করোনা ভাইরাস ও ওমিক্রনের বিস্তার ঠেকাতে সরকারের দেয়া বিধিনিষেধের দ্বিতীয় দিন শুক্রবার (১৪ জানুয়ারী) সকাল থেকে রাঙ্গামাটির পর্যটন কেন্দ্রগুলোতে মানুষের উপচেপড়া ভীড় দেখা গেছে। যেখানে সামাজিক দুরত্ব বা স্বাস্থ্যবিধি সঠিকভাবে মানা হচ্ছে না। আগত পর্যটকদের অধিকাংশের মুখে ছিলো না মাস্ক।
সরেজমিনে দেখা গেছে, সাপ্তাহিক ছুটির দিন রাঙ্গামাটির পর্যটন কেন্দ্রগুলোতে পর্যটকদের আগমন ছিলো অন্যান্য সময়ের মতো স্বাভাবিক। বিশেষ করে পর্যটন কর্পোরেশনের ঝুলন্ত সেতু আর জেলা পুলিশ পরিচালিত পলওয়েল পার্কে ছিলো পর্যটকদের গাদাগাদি। তবে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে সকল প্রকার কার্যক্রম গ্রহন করে। পর্যটক এলাকায় আসা পর্যটকদের স্বাস্থ্য বিধি মনে চলতে ও মুখে মাক্স ব্যবহারের নিদের্শ প্রদান করছেন।
এদিকে স্বাস্থ্য বিভাগ রাঙ্গামাটি জেলাকে করোনা সংক্রমনের হার বিবেচনায় রেড জোন হিসেবে চিহ্নিত করার পর থেকে জেলা প্রশাসন তৎপর হয়ে উঠে। জরুরী বৈঠকের পাশাপাশি জনসচেতনতায় মাঠে নামে স্বয়ং জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারসহ প্রশাসনের উর্ধতন কর্মকর্তারা। শুক্রবারও জনসচেতনতায় জেলা তথ্য অফিস প্রচার কাজ চালায়। এতে সরকারের বিধিনিষেধ প্রচার করে মাইকিং করা হয়।
এদিকে পর্যটন কেন্দ্রগুলোতে সেচতনাতমূলক স্টিকার ব্যানার লাগানো হলেও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের তৎপরতা চোখে পড়ার মতো নয়।
জেলা প্রশাসক কার্যালয় জানায়, করোনার বিস্তার ঠেকাতে সকাল বিকেল শহরে দুটি করে চারটি মোবাইল টিম অভিযান চালাচ্ছে। শুক্রবার জুমার দিন শহরের বড় বড় মসজিদগুলোতে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও মাস্ক বিতরণের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।