নিখিল কুমার চাকমাই কী হচ্ছেন পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান!

368

নন্দন দেবনাথ, রাঙ্গামাটিঃ-পার্বত্য অঞ্চলের সবচেয়ে বড় উন্নয়ন প্রতিষ্ঠান পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের দায়িত্ব কী পাচ্ছেন রাঙ্গামাটি জেলার কৃতি সন্তান রাঙ্গামাটি জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও রাঙ্গামাটি জেলা পরিষদের সাবেক সফল চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা। ইতিমধ্যে প্রধানমন্ত্রীর টেবিলে ফাইল পৌছে গেছে। রবিবারের মধ্যে ফাইল স্বাক্ষর হয়ে প্রজ্ঞাপন জারী হতে পারে বলে দায়িত্বশীল একটি সুত্র নিশ্চিত করেছেন।

ইতিমধ্যে দীর্ঘ ৩ মাস ধরে শুন্য হয়ে থাকা পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান কে হচ্ছে এই নিয়ে তিন পার্বত্য জেলায় জল্পনা কল্পনা শুরু হয়। কে হচ্ছে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান। এর মধ্যেই মেয়াদ শেষ হয়ে যায় ভাইস চেয়ারম্যান নুরুল নিজামীরও । তাই চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান দুটি পদই শূন্য হয়ে যায়। এই অচলবস্থায় গত কয়েকদিন আগে ভাইস চেয়ারম্যান হিসাবে বোর্ডের সদস্য ড. আশীষ কুমার বড়–য়াকে নিয়োগ দেয়া হয়। কিন্তু উচ্চ পর্যায়ে সিদ্ধান্ত হীনতার কারণে দীর্ঘদিন চেয়ারম্যান পদ শুন্য থাকে।

১৯৭৬ পার্বত্য চট্টগ্রাম রাঙ্গামাটি, বান্দরবান ও খাগড়াছড়ি জেলার দৃষ্টিনন্দন প্রতিষ্ঠান হিসাবে বিবেচিত পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের যাত্রা শুরুর পর কয়েক দশক বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর চট্টগ্রাম অঞ্চরের জিওসি’রাই চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করতেন। ২০০১ সালে বিএনপির নেতৃত্বাধীন জোট সরকার ক্ষমতায় আসার পর প্রথমবারের মতো রাজনৈতিক নেতৃত্ব থেকেই মনোনয়ন দেওয়া হয় চেয়ারম্যানের। সেই সময় খাগড়াছড়ি থেকে নির্বাচিত, প্রভাবশালী দলীয় বাঙ্গালী সংসদ সদস্য আব্দুল ওয়াদুদ ভূঁইয়াকে চেয়ারম্যান হিসেবে মনোনয়ন দেয় বিএনপি সরকার।

এর পর ২০০৮ সালে আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর বান্দরবান থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য বীর বাহাদুরকে চেয়ারম্যান মনোনয়ন দেয়। ২০১৪ সালে আবারো আওয়ামীলীগ ক্ষমতায় আসলে বীর বাহাদুরকে পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী হিসেবে মনোনীত হলে উন্নয়ন বোর্ডে চেয়ারম্যান হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয় সাবেক পার্বত্য সচিব নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরাকে। প্রধানমন্ত্রীর আস্থাভাজন এই কর্মকর্তাকে টানা দুই মেয়াদে নিয়োগ দেয়া পর গত ১৮ মার্চ শেষ হয় তার মেয়াদ।

দীর্ঘদিন ধরে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের আলোচনায় আছেন রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সাবেক সফল চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা, খাগড়াছড়ির সংসদ সদস্য কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, খাগড়াছড়ির সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য বাসন্তী চাকমা, সাবেক অতিরিক্ত সচিব সুদত্ত চাকমার নাম। কিন্তু সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে ১ জনের নাম পার্বত্য মন্ত্রনালয় থেকে প্রধানমন্ত্রীর টেবিলে গেছে।

ইতিমধ্যে বিষয়টি নিয়ে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয়, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় সহ বিভিন্ন দপ্তরে কথা বললে আকার ইঙ্গিতে রাঙ্গামাটি জেলা পরিষদের সাবেক সফল চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমার নাম বার বার উঠে আসছে। তবে কেউ স্পষ্ট করে কার নাম প্রধানমন্ত্রীর টেবিলে গেছে সেটা কেউ বলছে না।

এদিকে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের সাবেক অতিরিক্ত সচিব সুদত্ত চাকমাকে দিতে আমলা পর্যায়ে একটি জোর চাপ ছিলো।
এই বিষয়ে নিখিল কুমার চাকমার সাথে কথা বললে তিনি কৌশলে বিষয়টি এড়িয়ে যান। তিনি বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যাকে যোগ্য মনে করবেন তাকেই দিবেন সেই হবে চেয়ারম্যান। আপনারা দেখবে সময় আসলে। তিনি বলেন, আমরা সকলেও আওয়ামী পরিবারের লোক। পরিবারের হয়ে পাহাড়ের মানুষের উন্নয়ন কাজ করছি সব সময়।